ভাবনা ছিল সুগন্ধি ফুল হয়ে ফোটার, ওপার বাংলার কবি রানু সরকার এর জীবন ছোঁয়া কবিতা ”ব্যাথিত হৃদয়”

329
ওপার বাংলার কবি রানু সরকার

ব্যাথিত হৃদয়

                            রানু সরকার

আমাদের কেউ জিজ্ঞাসা করলে বলি ভালো আছি,
কিন্তু আমরা কি কেউ ভালো আছি?

ভিতরে আমাদের ধসের পাহাড় ও অন্ধকার!
দ্যাখ নীলাঞ্জনা আমার ভেতরে শুকনো খরা,

নীলাঞ্জনা ভালো করে বুঝে দ্যাখ তোর ও কষ্ট হবে।
জানিস আমার ভেতরটা ভগ্ন ও ব্যাথিত অস্ত যাওয়া সূর্যের মত,

ভালো আছি বলি কিন্তু ভিতরে হতাশা কাজ করে।
কষ্টে হৃদয়ের কোন কোন স্থানে জং পড়ে গেছে,

ভাবনা ছিল সুগন্ধি ফুল হয়ে ফোটার,ভোরের কুয়াশা এসে ঢেকে দিয়ে গেল।
এত দিন ধৈর্য্য ধরে আছি কেন?

ভেবে ভেবে আমার চোখের নিচে কালি পড়ে গেলাম,
আতঙ্কে বাসকরি ভেতরে সবসময় চলে গোলযোগ।

দ্যাখ, নীলাঞ্জনা এই আমার ভোলো থাকা,

ভেতরে সবসময় চঞ্চলতা উদত্য মিটিং করে চলছে।
ঘন ঘন ক্ষুব্ধতা দেখাই সংসারে ডাকিও ধর্মঘট,

সংসারে একজন সদস্য বলেউঠে একি করছো তুমি বাইরের ব্যাপার ঘরে কেন?

সংসারে থেকে চলবে না এসব।
ব্যাথায় ভীষণ ভেঙে চুরমার হয়ে গেছে,

কেন করবো না ধর্মঘট চারি দিকে ক্ষুধার্ত ব্যাথিত শিশু অনাহারে।
শিশুদের দুর্ভিক্ষের মুখ দেখলে আমার কষ্টে হৃদয় ভেঙে হয় চুরমার,

ভিতরে আমার অস্থিরতা অসজ্জিত চিরখাওয়া,
তাও বলে চলি ভালো আছি আমি ও আমারা সবাই।

Content Protection by DMCA.com

1 COMMENT

LEAVE A REPLY