ফাল্গুনের বিভাসিত কবিতা থেকে কবি এম এ কাশেম এর অসাধারণ কবিতা ”ইতিহাস লিখে যায়”

428
কবি এম এ কাশেম

ইতিহাস লিখে যায়
=============
============এম এ কাশেম

রাজপথে সকলে নামে না
কেউ কেউ নামে
যারা নামে তারা ইতিহাস হয়।

কেউ নামে রাজপথে শোষিতের পক্ষে
মাথার উপরে মুষ্ঠিবদ্ধ দু’হাত তোলে
আকাশে বাতাসে বজ্র কণ্ঠে বিক্ষুব্ধ শ্লোগানে
শোষিত মানুষের অজস্র ধ্বনি-প্রতিধ্বনি তোলে
স্বৈরচারের বুকে কাঁপন জাগিয়ে
পিচ ঢালা কালো রাজপথ ধরে হেটে যায়
জীবন কিংবা মৃত্যুর দিকে
বিপ্লবের অমোঘ আহ্বানে…..

আবার কেউ নামে রাজপথে শোষকের পক্ষে
স্বৈরচারের দোসর হয়ে
ঢং করে সং সেজে নাচতে নাচতে
রাজপথ মাথায় তোলে
হালুয়া রুটির ভাগ পেতে।

রাজপথে সকলে সমান ভাবে আসে না
কেউ আসে রাজপথ কাঁপাতে
কেউ আসে রাজপথ সাজাতে
কেউ কেউ বুকের রক্ত দিয়ে রাজপথ রাঙায়
কেউ কেউ আবার বুকের রক্ত নিয়েও রাজপথ রাঙায়
যে যেমন করে রাঙায়
যে যেমন করে সাজায়
ইতিহাস তেমন করে লিখে যায়
রক্তের আকরে কালের পাতা ভরে
কলঙ্কের কালিমা লিপ্ত কিংবা
গৌরবের সোনালী অধ্যায়।

এই রাজপথ ধরে হেটে গেছে
কত কত রাজ-রাজড়ার ইতিহাস
কত কত হাতি, ঘোড়া, জলপাই ট্যাংক
হেটে গেছে কত শাসক, শোষক, স্বৈরচারের ইতিহাস
কত যে দিক বিজয়ী বীর যোদ্ধা কিংবা বিপ্লবীর ইতিহাস
আর কিছু মীর জাফরের ইতিহাস
বেঈমান গাদ্দারের ইতিহাস।

সকলে চলে গেছে
চলে যায়
চলে যাবে
রাজপথ শুধু রয়ে যায়
রয়ে যায় কালের সাক্ষী হয়ে
ইতিহাসের পাতায়।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY