তিস্তার পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

101
তিস্তা নদী
ছবি: সংগৃহীত

লালমনিরহাট প্রতিনিধি: লালমনিরহাটে ভারী বর্ষণ ও ভারত থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলে তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। শনিবার সকালে জেলার হাতীবান্ধায় অবস্থিত দেশের বৃহত্তম সেচ প্রকল্প তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় তিস্তা নদীর পানি বিপদ সীমার ২০ সে. মি উপর দিয়ে প্রবাহিত হতে থাকে।

এতে তিস্তা তীরবর্তী নিন্মাঞ্চলে পানি ঢুকে পড়েছে। বেশ কিছু বসত বাড়ির লোকজন পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।

হাতীবান্ধার উপজেলার তিস্তা নদীর তীরবর্তী এলাকার জনপ্রতিনিধিরা জানান, তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ার কারণে ওই ইউনিয়নের বেশ কিছু এলাকায় নদীর পানি ঢুকে পড়েছে। ওই সব এলাকার অনেক বসত বাড়িতে পানি উঠেছে। এতে লোকজন পানি বন্দি হয়ে পড়েছে।

তিস্তা ব্যারাজ দোয়ানী – ডালিয়া’র পানি উন্নয়ন বোর্ড’র এক কর্মকর্তা তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধির বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ভারত থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল ও কয়েক দিন ধরে ভারী বর্ষণের কারণে তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে। শনিবার সকালে তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় বিপদ সীমার ২০ সে. মি উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হতে থাকে। এতে তিস্তা তীরবর্তী কিছু বসত বাড়িতে পানি উঠেছে।

এদিকে পানির গতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে তিস্তা ব্যারেজের ৪৪টি জলকপাট খুলে রাখা হয়েছে। তিস্তায় পানি বৃদ্ধির ফলে তিস্তা অববাহিকার ডিমলা ও জলঢাকা উপজেলার বিভিন্ন চর এবং নিম্নাঞ্চল পানিতে নিমজ্জিত হয়ে পড়েছে।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY