তরুণ উদ্যোক্তাদের স্বপ্নপূরণে পাশে থাকবে ‘ইয়াংবাংলা’

263

 ঢাকা প্রতিনিধি:  বিভিন্ন ক্ষেত্রে সেরা পাঁচটি ‘উদ্ভাবক ও উদ্যোক্তা’ দলকে অ্যাওয়ার্ড দিলো ইয়াং বাংলা ও মাইক্রোসফট। চার দিনব্যাপী সামিট শেষে তাদের হাতে তুলে দেয়া হয় স্টার্টআপ পুরস্কার। আইডিয়া বাস্তবায়নে মূলধন যোগান দেবে সংস্থা দুটি। সামিটে অংশ নিয়ে সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই)-এর ট্রাস্টি রেদওয়ান মুজিব সিদ্দিক জানিয়েছেন, তরুণ উদ্যোক্তাদের স্বপ্ন বাস্তবায়নে লবিস্ট হিসেবে কাজ করে যাচ্ছে ইয়াং বাংলা।  একই অনুষ্ঠানে, শুধু চাকরির পিছনে না ছুটে তরুণের আত্মনির্ভরশীল হওয়ার আহ্বান জানান সিআরআইয়ের ট্রাস্টি এবং বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ।

ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে শনিবার( ৭ অক্টোবর) সকালে শুরু হয় মাইক্রোসফট-ইয়াং বাংলা’ সামিটের চতুর্থ ও শেষ দিনের কার্যক্রম। প্রথমেই মাইক্রোসফট ও ইয়াং বাংলা’ পার্টনারশিপ নিয়ে বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরা হয়।

এরপর শুরু হয় পিচিং রাউন্ড। এতে বিচারক হিসেবে ছিলেন সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন-সিআরআই-এর ট্রাস্টি এবং বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, অন্যতম ট্রাস্টি রেদওয়ান মুজিব সিদ্দিক, মাইক্রোসফট বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সোনিয়া বশির কবির, ইনস্টিটিউট অব ইঞ্জিনিয়ার্সের সভাপতি প্রকৌশলী আবদুস সবুর।

তাদের সামনে একে একে  নিজেদের উদ্ভাবনী ভাবনা তুলে ধরে গত মার্চে ইন্টার্নশিপ প্রোগ্রামের শীর্ষ ১০টি গ্রুপ।  এরপর মঞ্চে ডাকা হয় সদ্য সমাপ্ত সেপ্টেম্বর ব্যাচের শীর্ষ ১০ গ্রুপকে। তারাও নিজেদের  আইডিয়া উপস্থাপন করেন। এই ২০টি গ্রুপ থেকেই বাছাই করা হয় সেরা পাচ উদ্ভাবনী ভাবনা। পরে তাদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন অতিথিরা।

শুধু ইন্টার্নশিপের শিক্ষার্থীরাই নয় সামিটে যোগ দেন তরুন উদ্যোক্তা, সংগঠক ও জয়বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্তরাও। তাদের স্বপ্ন পূরণে সবসময় পাশে থাকার কথা জানান রেদওয়ান মুজিব সিদ্দিক।

তরুণদের উদ্ভাবনী ভাবনা নিয়ে কথা বলেন বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রীও। তিনি সবাইকে আত্মনির্ভরশীল হওয়ার আহ্বান জানান। একই সঙ্গে, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি বিষয়েও তরুণদের আরও আগ্রহী হওয়ার পরামর্শ দেন প্রতিমন্ত্রী।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY