ঈশ্বরদীতে ধানের শীষের প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিবকে হত্যার উদ্দেশ্যে কুপিয়ে যখম করেছে দূর্বৃত্তরা

287

ঈশ্বরদী প্রতিনিধি ॥ বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির চেয়ারপার্সন সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার অন্যতম উপদেষ্টা ও ৯০’র গণঅভ্যুথানের ছাত্রঐক্যের সভাপতি ঈশ্বরদী-আটঘরিয়া আসনে বিএনপি মনোনীত ধানের শীষের প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিবকে আজ বুধবার সকাল ১১টা ৪০ মিনিটের সময় আলহাজ¦ টেক্্রটাইল মিলস স্কুল মাঠে হত্যার উদ্দেশ্যে কূপিয়ে গুরুতর যখম করেছে দূর্বৃত্তরা। হাবিব ছাড়াও আরও ৫ জন এঘটনায় আহত হয়েছে। হাবিব আজ ঈশ^রদী শহরে ধানের শীষের গণসংযোগ করার জন্য সেখানে নেতাকর্মীদের নিয়ে জড়ো হচ্ছিলেন। হামলার পর পুলিশের সহায়তায় হাবিবকে উদ্ধার করে ঈশ^রদী হাসপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে তাকে কয়েক ব্যাগ রক্ত দেয়া হয়। অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে পুলিশ স্কট দিয়ে পাবনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।


হাবিবের ছোট ভাই বাচ্চু জানান, ঈশ^রদী শহরে ধানের শীষের নির্বাচনী গণসংযোগের জন্য হাবিবুর রহমান হাবিব ভাই আজ নেতাকর্মীদের নিয়ে আলহাজ¦ টেক্্রটাইল মিলস স্কুল মাঠে জড়ো হচ্ছিলেন। যুবলীগ ও ছাত্রলীগের সন্ত্রাসীরা অস্ত্রসস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ৫০-৬০টি মোটর সাইকেলে করে উপস্থিত হয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। হাবিব ভাইকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর যখম করে। হাবিব ভাইয়ের শরীর থেকে প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছে। কুপিয়ে গুরুতর যখম করার পর সন্ত্রাসীরা মোটর সাইকেল নিয়ে চলে যায়।
ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্্েরর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার এফ এ আসমা খান বলেন, হাবিবের শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে বেশ কয়েক জায়গাতে কুপিয়েছে। হাবিবের শরীরে ২২টি সেলাই দেয়া হয়েছে। শরীর থেকে প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাকে দুই ব্যাগ রক্ত দেয়া হয়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য পাবনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
ঈশ্বরদী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বাহা উদ্দীন ফারুকী ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, দূর্বৃত্তরা বিএনপির ধানের শীষের প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিবকে কুপিয়ে আহত করে পালিয়ে যায়। পুলিশের সহায়তায় তাকে উদ্ধার করে ঈশ^রদী হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে পুলিশ স্কট দিয়ে পাবনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় ৭ জনকে আটক করা হয়েছে।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY