ফেসবুক রাইটার্স ক্লাব এর সাপ্তাহিক সাহিত্য প্রতিযোগিত-০৬ এর সেরা লেখা কবি—অতনু নন্দী এর কবিতা “পথ হারিয়েছে যে নক্ষত্ররা”

478
কবি—অতনু নন্দী

“পথ হারিয়েছে যে নক্ষত্ররা”

                                               অতনু নন্দী

(ফেসবুক রাইটার্স ক্লাব এর সাপ্তাহিক সাহিত্য প্রতিযোগিত-০৬ এর সেরা লেখা)
পড়ন্ত বিকালের রোদে ময়দানের পাশে
ফুটপাথ ধরে একদিন হেঁটে ফিরছি ,
হঠাৎ দেখা হয়ে যায় ক্লাস এইটের স্কুলছুট এক বান্ধবীর সঙ্গে ।
ব্যাগ থেকে একটা ডাইরি খুলে আমার দিকে এগিয়ে দেয় সে,
লেখা দেখে আমি চমকে উঠি –

যেদিন দূর থেকে দূরবর্তী হয়ে গেছে
সম্পর্ক এর জেটিঘাট ,
সেদিনই আমি বরফ প্রতিমা হয়ে গেছি ।

এ যেনো অনন্তের অভিমান , পুড়ে মরে
আমার সত্তা ।
প্রশ্ন করেছিলাম কোন পত্রিকায় লেখা দিস’ না কেন ?
উত্তরে বলে গেল
আঁধার আমার ভালো লাগে ।

সেদিন ভাঁটিখানায় গিয়েছিলাম সন্ধ্যা বেলায়
এক ছিপছিপে তরুণ বাংলা খেয়ে
বলে চলেছে-

বুকে মৃত নদী রাখি ,
পুড়ে যায় ইহকাল

ছুটে গিয়ে জড়িয়ে ধরি তাকে , বলি আকাশে তাকিয়ে দেখো পূর্ণিমা মেলেছে ডানা ,
আর এক পেগ চুমুক দিয়ে সে বলে ওঠে –

আমি দেখি ছায়াপথ
মিশে যাই মৃত নক্ষত্র’র দেশে

শুনে আমি বাকরুদ্ধ হয়ে যাই ।
তার কবি জন্মের কাছে মাথানত
করে ফিরে আসি ।

দিনের কোলাহল ফুরিয়ে আসে রাত গভীর হলে,
মুঠোফোনে আমি ফেসবুকে প্রিয় কবিদের টাইমলাইনে ঢুকে পড়ি কবিতা
ঈশ্বরকে খুঁজবো বলে ,

হটাৎ কোন তরুণ অনামি কবির পেজে চোখ আটকে যায়,
কি অনায়াসে সে লিখে রেখেছে –

বুনো আঁধারে ঢেকে গেছে আমার পুংজন্ম
তাই আজ আর রোদ্দুর খুঁজি না ।

তিন চার বার অনায়াসে পড়ে ফেলি
মুগ্ধতা গ্রাস করে আমায় ।
জীবন পিতার মতো জড়িয়ে ধরতে ইচ্ছা করে তাকে ।

সুন্দরবনে পিকনিক করতে গেছি বন্ধুদের সাথে জানুয়ারির শেষে ,
স্টিমার থেকে জঙ্গলে নেমে এসে দেখি
হোগলা পাতার উপড় পড়ে আছে অসমাপ্ত একটি কবিতার কএকটি লাইন,
প্রেমিকার মতো আঁকড়ে ধরি ।

দেখি কবি লিখে গেছে –

এসো প্রিয় স্বদেশ
সবুজে বোনা সোয়েটার হয়ে,
শিকারীর গল্পে হিম ঢেকে রাখি ..

আমি অরণ্যে পাগলের মতো খুঁজতে থাকি কবিকে ,
মৃত্যু ভয় উড়ে গেছে তখন
একটি বার তার চরণ ছোঁব বলে ।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY