কবি বাবুল হোসেন বাবলু এর কবিতা “কালের অন্তর্গত স্রোত ”

377

কালের অন্তর্গত স্রোত

বাবুল হোসেন বাবলু

( প্রতিভা সন্ধান কাব্য পরিষদ এর সেরা লেখা )

কালের সাক্ষী হয়ে থাকবে কেউ -হয়তোবা না
ক্রন্দিত বিশ্ববাসী শঙ্কিত যাপনা-বিষাক্ত বাতাস
অদেখা শত্রু যখন তখন নীরব চারণে দেয় হানা
স্তব্ধতার অতলান্তে অসহায় স্বজনদের তপ্তশ্বাস।
শবের সৎকারে বিমূর্ত পুুষ্পাঞ্জলি -সমাধির পরে
অদূরে দণ্ডায়মান আপনজনা -বিমর্ষ বিষণ্ণতায়
মরা কান্নার করুণ রোল অভুক্ত শুনের চিৎকারে
ধূপ ধোয়া চন্দন পুষ্পজল -পরশ বুলায়না গায়।
মেঘের চাদর ভেদে উড্ডীয়মান নয় আকাশযান
সমুদ্রের উত্তাল তরঙ্গের পাঁজর ছিঁড়েনা রণতরী
জল দর্পণে দর্শিত -পূর্ণিমা তিথির রশ্মি ম্রিয়মাণ
বদ্ধ খাঁচায় রুদ্ধশ্বাসে- নরকসম স্বপ্নিল বিভাবরী।
প্রান্তর জনপদ -জনশূন্যতায় হাহাকারে দিবারাতি
ফুলেল কাননে কণ্টকজ্বালা -ক্ষয়িষ্ণুতা করে রাজ
আঁধার কুটিরে নীরব ক্রন্দন -জ্বলেনা সান্ধ্যবাতি
আদির আদলে বনেবাস -কে আগামীর অধিরাজ ?
যুগের ইতিকথা ধূসর শিলাতে -হবে হয়তো অঙ্কিত
আজ আছে যারা হারাবে কাল -কালের পরিক্রমায়
অনাগত দিন নবনব প্রাণীতে -হবে আবার মুখরিত
শান্ত পৃথ্বী অশান্তির অনলে -দগ্ধ করলো করোনায়।
মুছবেনা বেদনার স্মৃতি -ইতিহাসের তিক্ত পাতা হতে
ধ্বংসস্তূপের মধ্যে উদিত হবে নবযুগের রক্তিম সূর্য
ফুলেরা ছড়াবে সুবাস- গাইবে পাখিরা হরষিত চিত্তে
জীবনের জয়গানে মূর্ত হবে তারুণ্যের প্রদীপ্ত শৌর্য।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY