“ঘুমন্ত দেহ” কবিতাটি লিখেছেন ভারত থেকে কলমযোদ্ধা শিখা গুহ রায় ।

270
“ঘুমন্ত দেহ” কবিতাটি লিখেছেন ভারত থেকে কলমযোদ্ধা শিখা গুহ রায়

ঘুমন্ত দেহ

            শিখা গুহ রায়

একটি পাখি পুষেছিলাম সযতনে
তোমায় দেব বলে,
যুগের পর যুগ অপেক্ষা।

বসন্তঋতুতে শিমুলে ডালে
বৃষ্টি নাপাওয়ার জমি
চিরে নীল স্রোত বইছে,
তবুও তোমার নাম ধরে ডাকছে।

তবে ঠিক জানা নেই
একদিন কোথা থেকে এসেছিল
বসেছিল পাসে
দানা খেয়েছে আপন হাতে।

এখন সে হাড়িয়ে যেতে চায়
হাড়িয়ে গেছে মন থেকে
খাঁচা ছেড়ে, সবকিছু ভেঙে
কি করে পারে বেইমান হতে!

যদি পার হাত বারিয়ে স্পর্শ করো
ঘুমন্ত এই দেহকে,দেখবে মৃত গাছটা
দাড়িয়ে আছে মাটির পরে।

এখানে আজ অন্ধকার
কোথাও আলোর দরজা খোলা নেই
এইভাবেই কাটছে দিন রাত মাস বছর।

অথচ সূর্য জানে ঠিক ডুবতে হবে
তবুও সে তাঁর সমস্ত আলো
ছাড়াতে চায় উঠানে।
শেষে হলুদ রং মেখে উড়ে গেছে
মেঘেদের সাথে।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY